সুপার ওভারেও টাই! অবিশ্বাস্য ফাইনালে বাউন্ডারি মেরেই বাজিমাত ইংল্যান্ডের

Updated: 15 July 2019 14:45 IST

চুলচেরা হিসেবের নিক্তিতে নিউজিল্যান্ডকে পিছনে ফেলে মর্গ্যানরাই হাসলেন শেষ হাসি।

How England Won The World Cup After Super Over Drama
রুদ্ধশ্বাস ফাইনালে শেষ পর্যন্ত জয়ী হয় ইংল্যান্ড © এএফপি

চূড়ান্ত নাটকের শেষে বিশ্বকাপ (World Cup 2019) জিতে নিল ইং‌ল্যান্ড (England)। রবিবার ক্রিকেট বিশ্ব প্রত্যক্ষ করল এক সর্বোচ্চ পর্যাযের ক্রিকেট লড়াই। ‘ক্রিকেটের মক্কা' লর্ডসে (Lord's) ১০০ ওভারের খেলা শেষে টাই হয় ম্যাচ। আইসিসির নিয়ম অনুসারে ম্যাচের নিষ্পত্তি ঘটাতে এবার শুরু হয় সুপার ওভার। মার্টিন গাপ্তিল রান আউট হন ফাইনাল বলে। আইসিসির প্রতিযোগিতায় এই নিয়ম রয়েছে যে, যদি সুপার ওভারেও স্কোর সমান হয়, তাহলে দেখতে হবে কোন দল বেশি বাউন্ডারি মেরেছে। ইংল্যান্ড এ ব্যাপারে কিউইদের থেকে এগিয়ে থাকায় তারাই বিজয়ী হয়। জিতে নেয় ২০১৯ ক্রিকেট বিশ্বকাপ। চুলচেরা হিসেবের নিক্তিতে নিউজিল্যান্ডকে পিছনে ফেলে মর্গ্যানরাই হাসলেন শেষ হাসি।

এদিন টসে জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় নিউজিল্যান্ড। মেঘলা আবহাওয়ায় উইলিয়ামসনরা তোলেন ২৪১/৮। ইংল্যান্ডের দুরন্ত পেস বোলিংয়ের সামনে অনেক লড়েও আড়াইশোর গণ্ডি আর পেরোতে পারেনি নিউজিল্যান্ড। জবাবে ইংল্যান্ডও বিপদে পড়ে। অনেক লড়ে তারা থামে ২৪১-এই।

চার বছরের কঠোর পরিশ্রম কাজে লাগলো, বিশ্বকাপ জয়ের পর বললেন বেন স্টোকস

সুপার ওভারে ইংল্যান্ড প্রথমে ব্যাট করে। ৯৮ বলে ৮৪ রান করা বেন স্টোকস ও জস বাটলারকে পাঠানো হয় ব্যাট করতে। তাঁরা তোলেন ১৫ রান। নিউজিল্যান্ড এক উইকেট হারিয়ে ওই রানেই শেষ করে তাদের সুপার ওভার ইনিংস। এবার বাউন্ডারি গণনায় জিতে যায় ইংল্যান্ড। তারা মেরেছিল ২৪টি বাউন্ডারি। কিউইরা সেখানে মেরেছে ১৬টি।

World Cup 2019, NZ Vs ENG: সুপার ওভারে জিতে প্রথম বিশ্বকাপ ইংল্যান্ডের

সুপার ওভারে আয়োজক দেশ দু'টি বাউন্ডারি মেরেছিল। কিউইদের পক্ষে ছক্কা মারেন জিমি নিশাম।

রবিবারের ফাইনালে বিরাট কীর্তি গড়লেন ‘ব্ল্যাক ক্যাপস'-দের বোলার কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম। তিনি ১০ ওভারে ২১ রান দিয়ে এক উইকেট পান। ভেঙে দেন ডেরেক প্রিঙ্গলের (২২/৩) বিশ্বকাপ ফাইনালে কৃপণতম বোলিংয়ের নজির। লকি ফার্গুসন ও জিমি নিশাম তিনটি করে উইকেট পান।

ইংল্যান্ডের সেরা ক্রিস ওকস ৯ ওভারে ৩৭ রান দিয়ে ৩ উইকেট পেয়ে। হেনরি ন‌িকোলাস (৭৭ বলে ৫৫) ও কিউই অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন (৫৩ বলে ৩০) প্রথম উইকেটে ৭৪ রান তোলেন। কিন্তু আড়াইশোর গণ্ডি পেরোতে পারেননি তাঁরা।

ইংল্যান্ড জেসন রয় (১৭), জো রুট (৭) ও জনি বেয়ারস্টোকে (৩৬) হারায় ৭১ রানে। এরপরই মর্গ্যানের মারা আপার কাট বাউন্ডারির ধারে থাকা লকি ফার্গুসন ছুটে এসে লুফে নেন। ইংল্যান্ড সেই ধাক্কা সামলে সামনে এগোলেও ৫০ ওভারের হিসেবে জিততে পারেনি।

Comments
হাইলাইট
  • বিশ্বকাপ জিতে নিল ইং‌ল্যান্ড
  • কিউইদের থেকে বেশি বাউন্ডারি মেরে বিজয়ী তারা
  • সুপার ওভারেও টাই হওয়ায় এভাবেই নিষ্পত্তি ম্যাচের
সম্পর্কিত খবর
বিশ্বকাপ ফাইনালে হারের পরে তাঁর দুই ‘সেরা সমর্থক’-কে ধন্যবাদ গাপ্তিলের
বিশ্বকাপ ফাইনালে হারের পরে তাঁর দুই ‘সেরা সমর্থক’-কে ধন্যবাদ গাপ্তিলের
২০১৯ বিশ্বকাপ ফাইনালের ওভারথ্রো বিতর্কের রিভিউ করবে এমসিসি
২০১৯ বিশ্বকাপ ফাইনালের ওভারথ্রো বিতর্কের রিভিউ করবে এমসিসি
বিশ্বকাপ জিতেও স্বস্তিতে নেই ইংল্যান্ড অধিনায়ক ইয়ন মর্গ্যান
বিশ্বকাপ জিতেও স্বস্তিতে নেই ইংল্যান্ড অধিনায়ক ইয়ন মর্গ্যান
বিশ্বকাপ ফাইনালের হার ভুলতে বাড়ি ফিরে কী করবেন, জানালেন ট্রেন্ট বোল্ট
বিশ্বকাপ ফাইনালের হার ভুলতে বাড়ি ফিরে কী করবেন, জানালেন ট্রেন্ট বোল্ট
ফাইনালের বিতর্কিত ‘ওভারথ্রো’ নিয়ে অবশেষে মুখ খুললেন কেন উইলিয়ামসন
ফাইনালের বিতর্কিত ‘ওভারথ্রো’ নিয়ে অবশেষে মুখ খুললেন কেন উইলিয়ামসন
Advertisement