পরিবর্ত খেলোয়াড়ের নতুন নিয়মকে স্বাগত ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার

Updated: 19 July 2019 15:53 IST

ইংল্যান্ড বনাম অস্ট্রেলিয়ার ওই ম্যাচেই প্রথম দেখা যাবে ‘কনকাশন সাবস্টিটিউটস’। এক্ষেত্রে পরিবর্ত খেলোয়াড়টিকে ম্যাচ রেফারির অনুমতিক্রমে দলে ঢুকতে হবে।

Cricket Australia Welcomed ICC
বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে অজি উইকেটকিপার ক্যারি চোট পান ইংল্যান্ডের তারকা পেসার জোফ্রা আর্চারের বলে। © এএফপি

‘কনকাশন সাবস্টিটিউটস' (Concussion Substitutes) চালু করার আইসিসির (ICC) সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানাল ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (Cricket Australia)। ১ আগস্ট ইংল্যান্ডের (England) মাটিতে শুরু হতে চলা অ্যাসেজ সিরিজ থেকে এই ব্যবস্থা চালু হচ্ছে। ২০১৬-১৭ মরশুম থেকে অস্ট্রেলিয়ার ঘরোয়া ক্রিকেটে ‘কনকাশন সাবস্টিটিউটস' চালু করা হয়। এবার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটেও চালু হতে চলেছে। ১ আগস্ট এজবাস্টনে শুরু হচ্ছে অ্যাসেজ। ইংল্যান্ড বনাম অস্ট্রেলিয়ার ওই ম্যাচেই প্রথম দেখা যাবে ‘কনকাশন সাবস্টিটিউটস'। এক্ষেত্রে পরিবর্ত খেলোয়াড়টিকে ম্যাচ রেফারির অনুমতিক্রমে দলে ঢুকতে হবে। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার ক্রীড়া বিজ্ঞান ও ক্রীড়া চিকিৎসা ম্যানেজার অ্যালেক্স কুন্টোরিস আইসিসির সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছেন। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার অন্তর্বর্তী এগজিকিউটিভ জেনারেল ম্যানেজার বেলিন্ডা ক্লার্ক জানিয়েছেন, অস্ট্রেলিয়ান বোর্ড এক্ষেত্রে অগ্রণী ভূমিকা পালন‌ করায় গর্ববোধ করছে।
অ্যালেক্স কুন্টোরিস বলেন, ‘‘২০১৬-১৭ সাল থেকে ‘কনকাশন সাবস্টিটিউটস' চালু করেছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। ঘরোয়া ক্রিকেটে একদিনে ম্যাচ হোক বা টি২০ ম্যাচ, সেখানে চালু ছিল এই ব্যবস্থা। পরে ২০১৭-১৮ সাল থেকে প্রথম শ্রেণির ঘরোয়া ক্রিকেটেও চালু করা হয় ‘কনকাশন সাবস্টিটিউটস'। এই ভাবে পরিবর্ত খেলোয়াড়কে ব্যবহার করার পদ্ধতিকে খেলোয়াড়, কোচ ও মেডিকেল স্টাফ সকলেই প্রশংসা করেছিলেন।''

ক্রিকেটকে আরও নিরাপদ করতে আইসিসির নয়া পদক্ষেপ অ্যাসেজ থেকেই
তিনি আরও বলেন, ‘‘এর ফলে মেডিকেল স্টাফরা খেলোয়াড়দের চিকিৎসার ক্ষেত্রে অনেক কম চাপে কাজ করতে পারবেন। কেননা একজন কম খেলার চাপ নিতে হবে না সংশ্লিষ্ট দলকে। খেলোয়াড়রাও শারীরিক অবস্থার তেমন অবনতি হলে জানাতে কুণ্ঠা বোধ করবেন না, কেননা তিনি জানেন এতে তাঁর দল সমস্যায় পড়বে না।''
বেলিন্ডা ক্লার্ক জানান, তাঁরা আনন্দিত আইসিসি এই নিয়ম চালু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এবং বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের গোড়া থেকেই এটা চালু করে দিচ্ছে। 

ফাইনালের বিতর্কিত ‘ওভারথ্রো' নিয়ে অবশেষে মুখ খুললেন কেন উইলিয়ামসন
তিনি বলেন, ‘‘অস্ট্রেলিয়ার মহিলা দল প্রথম এই নিয়মের সুবিধা নিতে পারবে সেপ্টেম্বরে আইসিসি আন্তর্জাতিক মহিলা চ্যাম্পিয়নশিপের সময়।''
এই নতুন নিয়মে মাথায় আঘাত লেগে কোনও খেলোয়াড় গুরুতর চোটগ্রস্ত হয়ে খেলতে না পারলে তাঁর বিরুদ্ধে পরিবর্ত খেলোয়াড় নামতে পারবে। কেবল ফিল্ডিং নয়, প্রয়োজনমতো ব্যাট, বলও করতে পারবেন সেই ক্রিকেটার।

Comments
হাইলাইট
  • ১ আগস্ট এজবাস্টনে শুরু হচ্ছে অ্যাসেজ
  • ওই সিরিজ থেকেই চালু হচ্ছে ‘কনকাশন সাবস্টিটিউটস’
  • আইসিসির এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানাল ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া
সম্পর্কিত খবর
আইসিসির নিয়ম ভেঙে নির্বাসিত সংযুক্ত আরব আমিরশাহী ক্রিকেট দলের অধিনায়ক
আইসিসির নিয়ম ভেঙে নির্বাসিত সংযুক্ত আরব আমিরশাহী ক্রিকেট দলের অধিনায়ক
করাচির বৃষ্টির প্রভাবে পিছিয়ে গেল দ্বিতীয় ম্যাচ, মজার টুইট আইসিসির
করাচির বৃষ্টির প্রভাবে পিছিয়ে গেল দ্বিতীয় ম্যাচ, মজার টুইট আইসিসির
আইসিসির সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধল ফেসবুক
আইসিসির সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধল ফেসবুক
আইসিসির নির্বাসিত জিম্বাবোয়ে খেলতে যাচ্ছে বাংলাদেশে
আইসিসির নির্বাসিত জিম্বাবোয়ে খেলতে যাচ্ছে বাংলাদেশে
আইসিসির এলিট আম্পায়ারদের প্যানেল থেকে বাদ পড়লেন শেষ ভারতীয় প্রতিনিধিও
আইসিসির এলিট আম্পায়ারদের প্যানেল থেকে বাদ পড়লেন শেষ ভারতীয় প্রতিনিধিও
Advertisement