কোহলির সেঞ্চুরি, ধোনির হাফ সেঞ্চুরিতে বিরাট লক্ষ্য ছাপিয়ে জয় ভারতের

Updated: 15 January 2019 16:59 IST

তিন উইকেট পড়ার পর শন মার্শের সঙ্গে অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটিংয়ের হাল ধরেছিলেন পিটার হ্যান্ডসকম্ব।

India Vs Australia 2nd ODI: Australia Won Toss And And Elected To Bat
বল হাতে সফল পেসাররা © এএফপি

সিডনি ওয়ান ডে হারের পর সিরিজে টিকে থাকতে ভারতের কাছে এই ম্যাচ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। তিন ম্যাচের সিরিজে জয়ের আশা জিইয়ে রাখতে হলে অ্যাডিলেডে ম্যাচ জিততেই হবে ভারতকে। এই লক্ষ্যেই দ্বিতীয় ওডিআই খেলতে নেমেছে ভারত। অস্ট্রেলিয়ার সামনে টেস্ট সিরিজে হারের পর ওডিআই সিরিজে ঘুরে দাড়ানোর পালা। সেই লক্ষ্যে তারা অনেকটাই সফল প্রথম ম্যাচ জিতে নিয়ে। মঙ্গলবার টস জিতে অ্যাডিলেডে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় অস্ট্রেলিয়া। শুরুটা যদিও ভাল হয়নি হোম টিমের। প্রথম ম্যাচের মতই দুই ওপেনার দ্রুত ফিরে যান প্যাভেলিয়নে। ক্যারি ১৮ ও ফিঞ্চ ৬ রান করে আউট হয়ে যান। তিন নম্বরে ব্যাট করতে নেমে উসমান খোয়াজা ২১ রান করে ফিরে যান প্যাভেলিয়নে। একাই লড়াই চালালেন শন মার্শ। করে ফেললেন সেঞ্চুরিও। ৫০ ওভারের শেষে অস্ট্রেলিয়া ২৯৮/৯।

সেই বিরাট লক্ষ্যে নেমে সেঞ্চুরি হাঁকান বিরাট কোহলি। চার বল বাকি থাকতেই জয় তুলে নিল ভারত। শেষ ওভারে ভারতের দরকার ছিল সাত রান। হাতে ছিল ছয় উইকেট। ক্রিজে তখন বিশ্বের সেরা ফিনিশার এমএস ধোনি। সঙ্গে দীনেশ কার্তিক।  শেষ ওভারের প্রথম বলেই বাউন্ডারি হাঁকিয়ে সমতায় এসে দ্বিতীয় বলেই জয় তুলে নিল ভারত। ৫৫ রান করে অপরাজিত থাকলেন ধোনি। ২৫ রানে অপরাজিত জানিশ কার্তিক।

ভারতের হয়ে এ দিন অভিষেক হল মহম্মদ সিরাজের। অস্ট্রেলিয়ার দুই ওপেনারকে প্যাভেলিয়নে ফেরালেন ভুবনেশ্বর কুমার ও মহম্মদ শামি। শন মার্শ ও পিটার হ্যান্ডসকম্বের ব্যাটে ১০০ রানের গণ্ডি পেড়িয়ে গিয়েছে অস্ট্রেলিয়া। প্রথম টেস্টের দলে কোনও পরিবর্তন আনেনি অস্ট্রেলিয়া। উইনিং কম্বিনেশন ভাঙতে চায়নি। ভারতীয় দলে একটি পরিবর্তন করা হয়েছে। সেখানে খলিল আহমেদের জায়গায় দলে এসেছেন মহম্মদ সিরাজ।

অ্যাডিলেডের তাপমাত্রা ৪০ ডিগ্রির আসপাশে ঘুরছে। টসের আগে বিরাট কোহলি বলেছিলেন, যস জিতলে তিনি ব্যাটিং নিতেই পছন্দ করবেন। একই মত ছিল অস্ট্রেলিয়ার অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চের।কিন্তু বিরাট কোহলির টস ভাগ্য বেশ খারাপ। তিনি এদিনও টস জেতেননি। তাই প্রথমে ব্যাট করাও হয়নি। আবারও রান তাড়া করতেই নামতে হবে ভারতকে।

তিন উইকেট পড়ার পর শন মার্শের সঙ্গে অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটিংয়ের হাল ধরেছিলেন পিটার হ্যান্ডসকম্ব। কিন্তু ২০ রানে জাডেজার বলে আউট হয়ে যান তিনি। একাই অন্য প্রান্ত থেকে লড়ছেন শন মার্শ। ইতিমধ্যেই হাফ সেঞ্চুরি করে ফেলেছেন তিনি। হ্যান্ডসকম্বের পর ২৯ রান করে ফিরে গিয়েছেন মার্কাস স্তইনিসও। পাঁচ উইকেট হারিয়ে ২০০ রানের গণ্ডি পেড়িয়েছে অস্ট্রেলিয়া। তার সঙ্গে নিজের সপ্তম সেঞ্চুরিটিও সেরে ফেললেন মার্শ। আউট হলেন ১২৩ বলে ১৩১ রান করে। এ ছাড়া ৪৮ রানের ইনিংস খেললেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল।

ভারতের হয়ে চার উইকেট নিলেন ভুবনেশ্বর কুমার। তিন উইকেট নিলেন মহম্মদ শামি। এক উইকেট রবীন্দ্র জাডেজার। যদিও কম রানে আটকানো গেল না অস্ট্রেলিয়াকে। বিরাট রানের লক্ষ্য নেমে ৩২ রান করে প্যাভেলিয়নে ফিরে গেলেন শিখর ধাওয়ান। আর এক ওপেনার রোহিত শর্মা প্রথম ম্যাচে সেঞ্চুরি করার পর দ্বিতীয় ম্যাচে ৪৩ রানের ইনিংস খেললেন।  ২৪ রান করে আউট হন অম্বাতি রায়ডু।সেঞ্চুরি করে বিরাট কোহলি আউট হওয়ার পর বাকি কাজটি করে দেন এমএস ধোনি।

Comments
সম্পর্কিত খবর
বিশ্বকাপের আগে মানসিকভাবে তৈরি ভারতীয় দল: বিরাট কোহলি
বিশ্বকাপের আগে মানসিকভাবে তৈরি ভারতীয় দল: বিরাট কোহলি
কেন রেগে গেলেন ক্যাপ্টেন কুল, দেখুন সেই ভিডিও
কেন রেগে গেলেন ক্যাপ্টেন কুল, দেখুন সেই ভিডিও
এটা ছিল ‘এমএস ক্লাসিক’, ম্যাচ শেষে এ ভাবেই ধোনির প্রশংসা করলেন বিরাট
এটা ছিল ‘এমএস ক্লাসিক’, ম্যাচ শেষে এ ভাবেই ধোনির প্রশংসা করলেন বিরাট
একদিনের ম্যাচে ৩৯তম সেঞ্চুরিটি হাঁকালেন বিরাট কোহলি
একদিনের ম্যাচে ৩৯তম সেঞ্চুরিটি হাঁকালেন বিরাট কোহলি
অভিষেকে খারাপ বল করে ট্রোলড হতে হল মহম্মদ সিরাজকে
অভিষেকে খারাপ বল করে ট্রোলড হতে হল মহম্মদ সিরাজকে
Advertisement